January 17, 2021, 6:10 am

#

আওয়ামীলীগ বাংলাদেশের গণতন্ত্র কে বার বার হত্যা করেছে – লন্ডন মহানগর বিএনপি

গণতন্ত্র হত্যা দিবস উপলক্ষে ও বিএনপি চেয়ারপার্সন, সাবেক প্রধানমন্ত্রী, গণতন্ত্রের মাতা বেগম খালেদা জিয়া ও ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান দেশনায়ক তারেক রহমানের সুস্বাস্থ্য ও দীর্ঘায়ু কামনা এবং বৈশ্বিক মহামারি করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত সকল মানুষের আশুরোগমুক্তি কামনায় লন্ডন মহানগর বিএনপির উদ্যোগে গতকাল মঙ্গলবার ভার্চুয়াল আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়। সভায় সভাপতিত্ব করেন লন্ডন মহানগর বিএনপির সভাপতি মোঃ তাজুল ইসলাম, পরিচালনা করেন লন্ডন মহানগর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আবেদ রাজা ও সাংগঠনিক সম্পাদক খালেদ চৌধুরী।

প্রধান অতিথি ছিলেন যুক্তরাজ্য বিএনপির সভাপতি আলহাজ্ব এম এ মালিক, প্রধান বক্তা যুক্তরাজ্য বি এন পির সাধারণ সম্পাদক কয়ছর এম আহমদ। বিশেষ অতিথির উপস্থিত ছিলেন যুক্তরাজ্য বিএনপির সাবেক যুগ্ম সম্পাদক কামাল উদ্দিন. যুক্তরাজ্য বিএনপির যুগ্ম সম্পাদক আজমল হোসেন চৌধুরী জাবেদ. লন্ডন মহানগর বি এন পির সিনিয়র সহ-সভাপতি মোঃ আব্দুল কুদ্দুছ. সহ-সভাপতি সাহেদ উদ্দিন চৌধুরী ,সহসভাপতি শরীফ উদ্দিন ভুঁইয়া বাবু. সহসভাপতি আব্দুস সালাম আজাদ ,সহসভাপতি আব্দুর রব ,সহসভাপতি কদর উদ্দিন ,সহসভাপতি তপু শেখ ,

সহসভাপতি এম এ তাহের, লন্ডন মহানগর বিএনপির প্রধান উপদেষ্টা. প্রবীণ বিএনপি নেতা আমির উদ্দিন মাস্টার. সাক্সেস বিএনপির সভাপতি কাউন্সিলর তোফাজ্জল হোসেন. বিএনপি নেতা সোহেল আহমদ সাদিক. নিউহ্যাম বিএনপি’র সভাপতি মোস্তাক আহমদ. জাসাস কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম সম্পাদক ইকবাল হোসেন. যুক্তরাজ্য মহিলা দলের সদস্য সচিব অঞ্জনা আলম. যুক্তরাজ্য আইনজীবী ফোরামের সাধারণ সম্পাদক ব্যারিস্টার হামিদুল হক আফিন্দী লিটন. মৌলানা শামিম আহমদ. লন্ডন মহানগর বিএনপির যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক ফয়সল আহমেদ.

যুগ্ম সম্পাদক মাহবুব হাসান সাকিব, সহসাধারণ সম্পাদক আজিম উদ্দিন আজির , সহ সাধারণ সম্পাদক তুহিন মোল্লা, সহ সাধারণ সম্পাদক সোহেল আহমেদ, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক তোফায়েল হোসেন মৃধা. সহ সাংগঠনিক সম্পাদক আবু তাহের. সহ সাংগঠনিক সম্পাদক জামাল উদ্দিন মাহমুদ চৌধুরী, সহ সাংগঠনিক সম্পাদক আরিফুল হক.কোষাধ্যক্ষ মোঃ জিয়াউর রহমান. দফতর সম্পাদক নজরুল ইসলাম মাসুক, প্রচার সম্পাদক মো: মঈনুল ইসলাম. সহ-প্রচার সম্পাদক সায়েক উদ্দিন.সমাজ কল্যাণ বিষয়ক সম্পাদক দেওয়ান মইনুল হক উজ্জ্বল.সৈয়দ নুরুল ইসলাম মধু মিয়া. বিএনপি নেতা আরিফ আহমদ. লন্ডন মহানগর বিএনপি নেতা রাজ মাসুদ ফরহাদ. সহ সমাজ কল্যান সম্পাদক মো: এনামুর রহমান এনু. সহ-শিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক মোঃ মাকসুদুল হক.শাকুর. ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক সিদ্দিকুর রহমান অলি ওয়াদুদ , মানবাধিকার বিষয়ক সম্পাদক মোঃ রবিউল আলম , সহ-যুব বিষয়ক সম্পাদক জমির আলী.তথ্য বিষয়ক সম্পাদক মোঃ লাল মিয়া.সহ-তথ্য বিষয়ক সম্পাদক শাকিল আহমদ.গবেষণা বিষয়ক সম্পাদক নুরুল ইসলাম. প্রশিক্ষণ বিষয়ক সম্পাদক রুমেল আহমেদ , ক্রীড়া সম্পাদক সৈয়দ আতাউর রহমান ,মহিলা বিষয়ক সম্পাদক কামরুন্নহার সাহানা. সমবায় বিষয়ক সম্পাদক মোঃ ওমর গনি , ফজলে রহমান পিনাক. ইকবাল হোসেন. আরিফ আহমদ. সৈয়দ খবির হোসেন, ফখরুল ইসলাম.আতাউর রহমান.ইমরান হোসেন. রানা আহমদ সোহেল. আব্দুল হক শাওন. সাব্বির আহমদ. পটল মিয়া. মো: আশরাফুল আলম,মুজিবুর রহমান. আব্দুল সালাম. আফতাব আলী.মো: সোহেল উদ্দিন সিকদার. মো: আকছার আহমদ. সৈয়দ কবির হোসেন.গোলজার আহমদ.মো: ইকবাল হোসেন. নজরুল ইসলাম.মোঃ শরিফুল ইসলাম. শাকেরা রব ইতি. ইয়াসমিন আক্তার. তারেক উদ্দিন. মো: রাজিব হোসেন. সাহেদ আহমদ. মো: মাহফুজ আহমদ.আব্দুল মান্নান. আদনান চৌধুরী আহাদ. সৈয়দ তারেক রশিদ. নূর আহমেদ জাকারিয়া প্রমুখ।
সভায় বক্তারা বলেন আওয়ামী লীগ সরকার গণতন্ত্রের সব স্তম্ভকে ধ্বংস করেছে। শেখ মুজিব ২৫শে জানুয়ারী ১৯৭৫ বাকশাল কায়েম করে যে যাত্রা শুরু করছিল। জিয়াউর রহমান ক্ষমতায় এসে বহুদলীয় সরকার প্রতিষ্টা করেন। জিয়াউর রহমানকে হত্যার পর এরশাদ আবার গণতন্ত্র হত্যা করে হাসিনার সহযোগিতায় শৈরতন্ত্র চালু করে আবার ও দেশ নেত্রী খালেদা জিয়া ক্ষমতায় এসে সংসদীয় গনতন্ত্র চালু করেন। এই গণতন্ত্রকে ধ্বংশ করে২০১৪ সালের ৫ জানুয়ারির নির্বাচনে পাঁচ কোটি ভোটার ভোটকেন্দ্রেই যেতে পারেননি। কেন না, ১৫৪ জন বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় এম পি নির্বাচিত করে আবারও বাংলাদেশের গণতান্ত্রিক ব্যবস্থা গলা টেপে হত্যা করে ক্ষমতাকে চিরস্থায়ী করার পায়তারা করছে কিন্তু দেশের জনত জেগে উঠছে তখন তাদের পালাবার পথ থাকবে না। দেশের গনতন্ত্র কে বার বার এই আওয়ামী লীগ গলা টিপে ধরছে।

#

     আরো পড়ুন: